DBC News
নুসরাত হত্যা: হুমকির মুখে সাক্ষীরা

নুসরাত হত্যা: হুমকির মুখে সাক্ষীরা

নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন ফেনীর সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলার সাক্ষীরা। তারা অভিযোগ করছেন আসামির স্বজনেরা নানাভাবে তাদের হুমকি দিচ্ছেন। তবে প্রশাসন বলছে, বাদী ও সাক্ষীদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিতে সচেষ্ট রয়েছেন তারা।

নুসরাত হত্যা মামলায় আসামিদের পক্ষে কৌঁসুলি ১৬ জন। অন্যদিকে, বাদী পক্ষের কৌঁসুলি মাত্র একজন। আর রাষ্ট্রের হয়ে একজন সরকারি কৌঁসুলি লড়ছেন। শুনানির সময় আদালত চত্বরে বাদীপক্ষের তেমন কেউ না থাকলেও আসামিদের স্বজন ও শুভাকাঙ্ক্ষীদের ভিড় চোখে পড়ার মতো।

সাক্ষীদের কৌশলে হুমকি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ নুসরাতের বড় ভাই ও মামলার বাদী মাহমুদুল হাসান নোমানের। তিনি বলেন, 'সাক্ষীদের বলা হচ্ছে তারা যেন সঠিক কথাগুলো আদালতে না বলে, সেজন্য তাদেরকে চাপ প্রয়োগ করা হচ্ছে।'

হত্যা মামলায় সাক্ষ্য দেয়ায় মেয়ে ও পরিবারের নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কিত নুসরাতের সহপাঠি নাসরিন সুলতানা ফূর্তির পরিবার। ফূর্তির বাবা মুহাম্মদ সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, 'সাক্ষী দিয়েছে আমার মেয়ে, আমি ছিলাম। প্রতিহিংসা মানুষের থাকবে, এটাই স্বাবাবিক। সরকার যদি আমাদের নিরাপত্তার ব্যবস্থা করে তবে, আমাদের উপকার হবে।'

হত্যা মামলায় এখন পর্যন্ত যারা সাক্ষ্য দিয়েছেন বিভিন্নভাবে তাদের ভয়-ভীতি দেখানো হচ্ছে বলে দাবি করেন মামলার বাদীর আইনজীবী এম. শাহজাহান সাজু। তিনি জানান, 'সাক্ষীদের ভয়-ভীতি দেখানো হচ্ছে। এছাড়াও, তাদের নানাভাবে বলা হচ্ছে যেন অনেকের নাম না বলে।'

হুমকির প্রমাণ পেলে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান ফেনীর পুলিশ সুপার খোন্দকার নূরুন্নবী, 'কোন যদি প্রমাণ পাই যে কেউ তাদের বিরক্ত করছে বা কেউ তাদেরকে হুমকি দিচ্ছে, তাহলে সাথে সাথে তাদেরকে অ্যারেস্ট করা হবে ও কেস নেয়া হবে।'

মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলার বিরুদ্ধে করা শ্লীলতহানির মামলা তুলে না নেওয়ায় গত ৬ই এপ্রিল নুসরাতের গায়ে কেরোসিন দিয়ে আগুনে পোড়ানো হয়। ১০শে এপ্রিল, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মৃত্যু হয় নুসরাতের। পিবিআই মাদ্রাসার অধ্যক্ষসহ ১৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করে। গত ২৭শে জুন থেকে মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ শুরু হয়।

আরও পড়ুন

সব প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এক বেলা খাবার নিশ্চিতের লক্ষ্যে 'জাতীয় স্কুল মিল নীতি' অনুমোদন

পর্যায়ক্রমে ২০২৩ সালের মধ্যে দেশের সব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের এক বেলা খাবার নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ‘জাতীয় স্কুল মিল নীতি ২০১৯’ এর খসড়...

ট্রেনে মাদ্রাসাছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার

রাজধানীর কমলাপুরে একটি ট্রেনের ভেতর থেকে এক মাদ্রাসাছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।   বিস্তারিত আসছে...

বাবাকে হত্যার দায়ে ছেলের মৃত্যুদণ্ড

পারিবারিক কলহের জেরে বাবাকে পিটিয়ে হত্যার দায়ে ছেলে আলতাফ হোসেন খন্দকারকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার দুপুরে, ঝলকাঠির...

তালপাতার পাঠশালায় বর্ণমালা-নামতার পাঠদান

গোপালগঞ্জের প্রত্যন্ত এক গ্রাম। সেখানে পরম আনন্দে শিশুরা শিখছে বর্ণমালা, নামতা। আর, লেখার হাতে খড়ি হচ্ছে তালপাতায় খলখাগড়ার তৈরি কলমে। শুকনো তালপাতা, নলখাগড়ার কল...

বাবাকে হত্যার দায়ে ছেলের মৃত্যুদণ্ড

পারিবারিক কলহের জেরে বাবাকে পিটিয়ে হত্যার দায়ে ছেলে আলতাফ হোসেন খন্দকারকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার দুপুরে, ঝলকাঠির...

হাইকোর্টে মিন্নির জামিন শুনানি মঙ্গলবার

বরগুনার রিফাত শরীফ হত্যা মামলার আসামি নিহতের স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নির জামিন শুনানি মঙ্গলবার পর্যন্ত মূলতুবি করেছে হাইকোর্ট। সোমবার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম...