DBC News
বিএসইসি'র কঠোর নজরদারীতে পুজিঁবাজার

বিএসইসি'র কঠোর নজরদারীতে পুজিঁবাজার

শেয়ারদর নিয়ে কারসাজি ও সন্দেহজনক লেনদেন এবং একাধিক শেয়ারের অস্বাভাবিক দরবৃদ্ধির লাগাম টানার উদ্যোগ নিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন, বিএসইসি। এজন্য তিন কোম্পানির শেয়ার লেনদেন ৩০ কার্যদিবসের জন্য স্থগিত করা হয়েছে। বিশ্লেষকরা বলছেন, মাঝে মাঝে নয়, সবসময়ই কঠোর নজর থাকতে হবে কমিশনের।

গত দুই মাসে বিডি অটো কারসের শেয়ারদর ১১৮ টাকা থেকে বেড়ে হয়েছে ৪৮৫ টাকা। লিগ্যাসি ফুটওয়্যারের শেয়ারদর চার মাসে ৫৫ টাকা থেকে ২৭৫ টাকায় দাঁড়িয়েছে। মুন্নু জুট স্টাফলার্সের শেয়ারদর পাঁচ মাসে ৮০০ থেকে বেড়ে ৪ হাজার ৬৩৯ টাকা হয়েছে। হঠাৎ করে ৩ কোম্পানির শেয়ারের দর বাড়ার কারন খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নিয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন, বিএসইসি।
 
দুই সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করে প্রতিবেদনের ভিত্তিতে সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ অর্ডিন্যান্স ১৯৬৯-ধারার ৯ এর (৭) অনুসারে এ তিন কোম্পানির লেনদেন স্থগিত করে। শেয়ারের দর বাড়ার কারন ৩ কোম্পানি না দেখাতে পারলে আবারও ১৫ কার্যদিবসের জন্য লেনদেন স্থগিত করবে কমিশন ও স্টক এক্সচেঞ্জ।

ব্রোকার্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোস্তাক আহমেদ সাদেক জানান, 'এটা বিনিয়োগকারীদের জন্য একটা সতর্কতা ছিল। যেসব কোম্পানীর বিনিয়োগ ৫ থেকে ৭ বছর ধরে বন্ধ, তিন বছরের মধ্যে কোন রিপোর্ট দিচ্ছে না, সেসব কোম্পানীকে ডিলিস্ট করা হয়েছে।'

শেয়ারদর নিয়ে কারসাজি, সুবিধাভোগী ব্যবসা ও সন্দেহজনক লেনদেনের সঙ্গে জড়িত থাকার সন্দেহে কোম্পানিগুলোর বেচা-কেনা স্থগিত করা হয়েছে। ১৯শে আগস্ট থেকে আগামী ৩০ কার্যদিবস এই কোম্পানিগুলোর লেনদেন বন্ধ থাকবে।

মোস্তাক আহমেদ সাদেক আরও জানান, 'সঠিক সময়েই আমরা এসব কোম্পানীগুলোর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিয়েছি। আগামীতে এ রকম পদক্ষেপ আরো নেয়া হবে। এ রকম পদক্ষেপ নেয়া হলে শেয়ার নিয়ে যারা জুয়া খেলে তারা সাবধান হয়ে যাবে। শেয়ার বাজার সুস্থ বাজারে পরিণত হবে।'

অস্বাভাবিক দরবৃদ্ধি ঠেকাতে কমিশনের নির্দেশনা অনুযায়ী, মূল বাজারে নয় শুধু স্পট মার্কেটে লেনদেন হবে ৫ কোম্পানির।

এদিকে,ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ  নতুন করে আরো ১৫টি কোম্পানির কর্মক্ষমতা যাচাই করবে। কোম্পানিগুলো ৫ বছর লভ্যাংশ প্রদানে ব্যর্থ হওয়ায় নতুন করে তাদের মূল্যায়ন করা হবে।