DBC News
হজ পালনে গিয়ে ভোগান্তিতে হাজিরা

হজ পালনে গিয়ে ভোগান্তিতে হাজিরা

মক্কায় পবিত্র হজ পালন শেষে কিছু অসাধু এজেন্সির অব্যবস্থাপনার কারণে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন বাংলাদেশি হাজিরা। 

আল্লাহর ডাকে সাড়া দিয়ে যারা হজ পালন করতে যান তারা আল্লাহর মেহমান হিসেবেই গণ্য হন। হজ পালন করতে আসা সারা পৃথিবীর হজযাত্রী বা হাজিরা আল্লাহর মেহমান হিসেবে বিশেষ মর্যাদা পেয়ে থাকেন। হজ পালন করতে আসা হাজিদের যেন কোন বিড়ম্বনায় পড়তে না হয় সেজন্য নেয়া হয় যথাযথ ব্যবস্থা। তবে বাংলাদেশের হজ এজেন্সিগুলোর দায়িত্ব পালনে আন্তরিকতার অভাব রয়েছে বলে মনে করছেন হাজিরা।

আর অনুমতি ছাড়া হজ পালনসহ নানা অনিয়মের অভিযোগে এবার ৪০ হাজার বাংলাদেশি হাজিকে সনাক্ত করেছে সৌদি আইন প্রয়োগকারী সংস্থা।

হজের শেষ দিন জামারায় কঙ্কর নিক্ষেপের পর মিনার তাঁবু ছাড়ছেন হাজীরা। সব আনুষ্ঠানিকতা শেষে ২৭শে আগস্ট থেকে শুরু হয়েছে বাংলাদেশি হাজিদের ফিরতি হজ ফ্লাইট। সব কিছু ঠিক থাকলে ২৬শে সেপ্টেম্বরের মধ্যেই ফিরে আসবেন বাংলাদেশ থেকে হজ পালন করতে যাওয়া হাজিরা।

তবে কয়েকটি হজ এজেন্সির খামখেয়ালীর কারণে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন অনেক হাজি। বাসস্থানের অভাবে হাজীদের রাত কাটাতে হচ্ছে মক্কার রাস্তাসহ বাংলাদেশ হজ মিশনের প্রাঙ্গণ ও বারান্দায়।

আসা-যাওয়াসহ সবকিছুতেই ভোগান্তিতে পড়েছেন বলে জানান হাজিরা। এছাড়া এজেন্সিগুলো হাজিদের যেসব সুযোগ-সুবিধা দেয়ার কথা ছিলো সেগুলোও তারা পূরণ করেনি বলেও অভিযোগ করেন হাজিরা। হজ পালনে বিভিন্নস্থানে যাতায়াতের জন্য হাজিদের পরিবহণ সুবিধা দেয়ার কথা থাকলেও এজেন্সিগুলো তা পূরণ করেনি বলেও অভিযোগ করেন হাজিরা।

এদিকে মক্কায় বাংলাদেশ হজ মিশন ও সৌদি হজ কর্তৃপক্ষ, হাজীদের কাবা শরিফের কাছাকাছি স্থানে থাকার ব্যবস্থা না করাসহ চুক্তি ভঙ্গের ৫০টি অভিযোগ এনেছে কিছু হজ এজেন্সির বিরুদ্ধে।

বাংলাদেশি হাজিদের হয়রানি রোধে সবধরনের ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়ে ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমান জানান, তদন্ত করে দায়ী এজেন্সিগুলোর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সৌদি আরবের সংবাদ মাধ্যমের তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের ১৬৪টি দেশের ২০ লাখের বেশি মুসলমান এবার হজ করছেন। এরমধ্যে যাদের মধ্যে বাংলাদেশির হাজির সংখ্যা ১ লাখ ২৭ হাজার ২'শ ৯৮ জন।

এর আগে হজ এজেন্সিগুলোর অবহেলা, অনাগ্রহসহ নানা কারণে এ বছর হজে যেতে পারেননি ৬০৬ জন হজযাত্রী। তখন এসবের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান ধর্মমন্ত্রী। এ সময় কিছু এজেন্সির উদাসীনতার কারণে রিপ্লেসমেন্ট কোটাও পূরণ হয়নি। 

চুক্তি অনুযায়ী এ বছর বাংলাদেশ থেকে হজে যাওয়ার কথা ছিল ১ লাখ ২৬ হাজার ৭৯৮ জন। এদের মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৬ হাজার ৭৯৮ জন। বাকিরা বেসরকারি ব্যবস্থাপনায়। সৌদি দূতাবাস ১ লাখ ২৬ হাজার ১৮৩ জনকে ভিসা দেয়।

আরও পড়ুন

কর ও শুল্ক আরোপের প্রভাব নির্মাণ খাতে

বাজেটে কর ও শুল্ক আরোপের কারণে, বেড়ে গেছে রড ও সিমেন্টের উৎপাদন খরচ। বেড়ে গেছে দামও। আর তার প্রভাব পড়েছে নির্মাণ খাতে। ফলে ফ্ল্যাটের দাম মধ্যবিত্তের নাগালের বাই...

শাহজালাল বিমানবন্দরে ইয়াবাসহ আটক দুই

রাজধানীর হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ১ হাজার পিস ইয়াবাসহ এক নারী এবং ১ যাত্রীকে আটক করেছে বিমানবন্দর আর্মড পুলিশ। আটক ব্যক্তিরা হলেন মোহাম্মদ সাইফুল ও...

হজে যাওয়া আরও তিন বাংলাদেশির মৃত্যু

সৌদি আরবে হজ্ব পালন করতে যাওয়া আরও তিন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে, হজ করতে যাওয়া ১৩ বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। সৌদি আরবে এই তিনজন হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মার...

মদিনায় বাংলাদেশি হজ যাত্রীর মৃত্যু

সৌদি আরবে মদিনায় মসজিদে নববীতে মোহাম্মাদুল হক নামে এক হজ যাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। ফজরের নামাজ আদায় করতে মসজিদে নববীতে যাওয়ার পর হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে তার মৃত্য...