DBC News
রাজশাহীতে পদবঞ্চিতদের বিএনপির কার্যালয় ভাঙচুর

রাজশাহীতে পদবঞ্চিতদের বিএনপির কার্যালয় ভাঙচুর

রাজশাহী মহানগর বিএনপির কার্যালয়ে ভাঙচুর চালিয়েছে ছাত্রদলের পদবঞ্চিত নেতারা। সোমবার দুপুরে, নগরীর মালোপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

পদবঞ্চিতদের এই হামলার সময় মহানগরীর মালোপাড়া এলাকায় ভুবনমোহন পার্ক সংলগ্ন বিএনপি কার্যালয়ে ছাত্রদলের নতুন কমিটিগুলোর নেতাকর্মীরা সভা করছিলেন। সভা পরিচালনায় ছিলেন রাজশাহী সরকারি সিটি কলেজ ছাত্রদলের নতুন কমিটির সাধারণ সম্পাদক এমদাদুল হক মিলন। 

এমদাদুল হক মিলন জানান, 'সকালে দলীয় কার্যালয়ে পরিচিতি সভার আয়োজন করা হয়। এ সময় পদবঞ্চিত বেশ কয়েকজন ছাত্র ও যুবদল নেতা তাদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় আহত হয় রাজপাড়া থানা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক রাতুলসহ বেশ কয়েকজন।'

তিনি বলেন, ‘গতরাতে আমরা নতুন কমিটির নেতাকর্মীরা বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু ভাইয়ের বাসায় তার সঙ্গে দেখা করি। তিনি রাজনৈতিক চর্চার জন্য আমাদের দলীয় কার্যালয়ে বসতে বলেন। সে অনুযায়ী আমরা দলের কার্যালয়ে বসি। এ সময় লাঠিসোটা নিয়ে আমাদের ওপর হামলা চালানো হয়। এতে বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হন। পরে আমাদের বের করে দিয়ে কার্যালয়ে ভাঙচুর চালানো হয়।'

এমদাদুল হক বলেন, ‘যারা হামলা করেছেন তারা ছাত্রলীগের সঙ্গে মেলামেশা করেন। হামলায় কতিপয় যুবদল নেতা এবং অ-ছাত্রও ছিলেন। পদবঞ্চিতরা এ হামলার ঘটনা ঘটিয়েছেন’।

এর আগে, গত শনিবার নগরের বোয়ালিয়া, রাজপাড়া, মতিহার, শাহ মখদুম, কাশিয়াডাঙ্গা ও চন্দ্রিমা থানা এবং রাজশাহী কলেজ, সিটি কলেজ এবং নিউ গভ. ডিগ্রি কলেজ ছাত্রদলের কমিটি ঘোষণা করে মহানগর ছাত্রদল। এসব কমিটিতে পদ না পেয়ে গতকাল রবিবার দুপুরে ছাত্রদলের নেতা-কর্মীরা দলীয় কার্যালয়ে গিয়ে তালা লাগিয়ে দেন। পরে বিকেলে নতুন কমিটির নেতারা তালা ভেঙে পরিচিতি সভা করেন।

রবিবার জেলা বিএনপি কার্যালয়ে তালা দেয়ার সময় মহানগর ছাত্রদলের সহসভাপতি মো. আরিফুজ্জামানও উপস্থিত ছিলেন। আজকের সোমবারের ভাঙচুরের বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, 'হামলার ঘটনা শুনে তিনি দলীয় কার্যালয়ে গিয়েছিলেন। তবে সেখানে কাউকে পাননি।'

আরিফুজ্জামান জানান, 'নতুন কমিটির নেতা-কর্মীরা সভা করছিলেন। পদবঞ্চিতরা গিয়ে তাঁদের বের হয়ে যেতে বলেন। তখন নতুন কমিটির নেতারা তাঁদের গায়ে হাত তোলেন। এ সময় দুই পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি ও চেয়ার ছোড়াছুড়ির ঘটনা ঘটে। এটা দুঃখজনক।'

নগরীর বোয়ালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমান উল্লাহ বলেন, 'ভাঙচুরের খবর পেয়ে বিএনপি কার্যালয়ে পুলিশ পাঠানো হয়। কিন্তু পুলিশ পৌঁছার আগেই ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে যায়। দলীয় কার্যালয়ে কোনো ছাত্রদলের নেতা-কর্মীকে পাওয়া যায়নি। এজন্য কাউকে আটকও করা সম্ভব হয়নি।'

আরও পড়ুন

'সরকারের ফ্যাসিবাদী রূপ উন্মোচিত'

জনগণের কাছে এবং বিশ্বের সামনে সরকারের ফ্যাসিবাদী রূপ উন্মোচিত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন, বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  বুধবার বিকেলে, রাজধানীর...

দেশের সব অর্জন আওয়ামী লীগের হাত ধরে এসেছে; প্রধানমন্ত্রী

দেশের যা কিছু অর্জন তা আওয়ামী লীগের হাত ধরেই এসেছে- এমন মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ বুধবার, বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ২০১৯ সাল...

এজি গ্রুপের চেয়ারম্যানের পিতা-মাতার স্মরণে মিলাদ মাহফিল

এজি গ্রুপের চেয়ারম্যান ও ডিবিসি নিউজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শহিদুল আহসানের পিতা-মাতার স্মরণে বার্ষিক মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রতিবছরের মতো এবারও নোয়াখালীর...

সোনাইমুড়ি উপজেলায় শোকের ছায়া

রাজধানীর চকবাজারে ভয়াবহ আগুনে নোয়াখালীর সোনাইমুড়ি উপজেলার এক পরিবারের দুইভাইসহ আটজনের মৃত্যু হয়েছে বলে এখন পর্যন্ত জানা গেছে।  এখনও নিখোঁজ রয়েছে অনেকে। এছা...