DBC News
জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব কফি আনান আর নেই

জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব কফি আনান আর নেই

জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব এবং রাখাইন অ্যাডভাইজরি কমিশনের প্রধান কফি আনান মারা গেছেন। তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন  রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী ও বিরোধীয় দলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ।

১৯৩৮ সালে ঘানায় জন্ম নেয়া কফি আনান জাতিসংঘের সপ্তম মহাসচিব ছিলেন। ১৯৯৭ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত দুই মেয়াদে ওই দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

আজ শনিবার আনান ফ্যামিলি এবং কফি আনান ফাউন্ডেশন থেকে এক টুইটে বিশ্ববরেণ্য এই নেতার মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করা হয়। মৃত্যুকালে কফি আনানের বয়স হয়েছিল ৮০ বছর।

সুইজারল্যান্ডের বার্নের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নোবেলজয়ী এই ব্যক্তিত্ব। এ সময় তাঁর পাশে ছিলেন স্ত্রী নানে এবং তিন সন্তান।

কফি আনানের মৃত্যুতে শোক জানিয়ে জাতিসংঘ অভিবাসন সংস্থা এক টুইটারে লিখেছে, 'আজ এক মহান নেতা ও স্বপ্নদর্শী মানুষকে হারিয়ে আমরা শোকাহত।'

মানবিক কর্মকাণ্ডের জন্য ২০০১ সালে জাতিসংঘের সঙ্গে যৌথভাব শান্তিতে নোবেল পুরস্কার পান কফি আনান। মিয়ানমারের রোহিঙ্গা সঙ্কটের সমাধানে রাখাইন অ্যাডভাইজরি কমিশনের প্রধান হিসেবে কাজ করছিলেন তিনি। গত বছর রাখাইনের পরিস্থিতি পরিদর্শন করতে কক্সবাজারেরে উখিয়ায় আসেন কফি আনান।  

২০০৭ সালে মানবাধিকার নিয়ে কাজ করা বৈশ্বিক নেতাদের গ্রুপ দ্য এলডারস’র প্রতিষ্ঠা হলে এর সদস্য হন কফি আনান। ২০১৩ সালে ওই গ্রুপের চেয়ারম্যান হন তিনি। ২০০৬ সালে মহাসচিবের দায়িত্ব ছাড়ার পর সিরিয়া সংঘাতের শান্তিপূর্ণ সমাধান খুঁজতে জাতিসংঘের বিশেষ দূত হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন তিনি।