DBC News
আমদানি করা গ্যাসের ৫ ভাগের ১ ভাগই যাবে অপচয়ে

আমদানি করা গ্যাসের ৫ ভাগের ১ ভাগই যাবে অপচয়ে

তিতাসে সিস্টেম লসের কারণে রোজ অপচয় হচ্ছে ১০ কোটি ঘনফুট গ্যাস। অথচ কয়েকদিন পরেই প্রতিদিন জাতীয় গ্যাস গ্রিডে যোগ হবে ৫০ কোটি ঘনফুট আমদানি করা গ্যাস। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, লোকসান কমানোর পাশাপাশ দেশি গ্যাস অনুসন্ধানের ওপর গুরুত্ব দিলে, ভবিষ্যতে আমদানির দরকার হবে না।

গৃহস্থালি কিংবা শিল্প কারখানায় সুবিধা নিতেই অবৈধ সংযোগ নেয়া হয়। অভিযোগ আছে এসব সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে তিতাসের তৎপরতা সামন্যই। সারাদেশে কতগুলো অবৈধ সংযোগ আছে, তার কোন হিসাবও নেই।

এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন বিইআরসি'র বিশ্লেষণ বলছে, তিতাসের সিস্টেম লসের নামে ২০১৬-১৭ অর্থবছরে গ্যাসের অপচয় হয়েছে ৬ শতাংশ বা ৩ হাজার ৬ শ ৭৬ কোটি ঘনফুট গ্যাস। প্রতিদিনের লোকসান ১০ কোটি ঘনফুট।

ক্যাবের জ্বালানি উপদেষ্টা অধ্যাপক শামসুল আলম জানান, ৩৪ লাখ মত চুলা আছে সেই চুলায় ৮৮ ইউনিট গ্যাস সরবারাহ করার কথা কিন্তু এখন সেই চুলাগুলো এখন গ্যাস সংকটে ভুগছে, তারা ১০ ইউনিটও বরাদ্দ পায়না। যাদের যে পরিমাণ গ্যাস পাওয়ার কথা তার থেকে বেশি গ্যাস দেয়া হচ্ছে তাহলে এই বাড়তি গ্যাস কোথায় যাচ্ছে। বাড়তি সরবরাহ করা এই গ্যাস কালো বাজারে বিক্রি হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

সিএনজি স্টেশন থেকেও গ্যাস বিক্রি হয়ে শিল্প কারখানায় যাচ্ছে বলেও জানান শামসুল আলম। তবে রাষ্ট্রের এই মুল্যবান সম্পত্তি শুধু যে চোরা পাইপেই অপচয় হচ্ছে তা কিন্তু নয়।

তীব্র গ্যাস ঘাটতি পূরণে আর ক'দিন বাদেই ভাসমান এলএনজি টার্মিনাল থেকে যোগ হবে দৈনিক ৫০ কোটি ঘনফুট আমদানি করা গ্যাস।   শুধু তিতাসের অপচয় পোষাতেই ২ মাস ১৩ দিন টানা গ্রিড লাইনে এই গ্যাস দিতে হবে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অপচয় কমানোর পাশাপাশি দেশিও গ্যাস দিয়েই চাহিদা মেটানো যেত। তবে সেখানেও পিছিয়ে সরকার।

জ্বালানি বিশেষজ্ঞ বদরুল ইমাম বলেন, 'এই ৭০ বছরে অনুসন্ধান কূপের সংখ্যা ৭০টি অর্থাৎ বছরে একটি করে, আন্তর্জাতিক মানদন্ডে এটি কোন অনুসন্ধানই নয় বলেও জানান তিনি।'

আমদানি করা প্রতি ঘনফুট গ্যাসের খরচ পড়বে ২৫ টাকা। বাড়তি দাম সমন্বয় করতে এরই মধ্যে গণশুণানির মাধ্যমে দাম বাড়ানোর প্রক্রিয়া শুরু করেছে বিইআরসি।

আরও পড়ুন

‘যোগ্য প্রার্থীকে মনোনয়ন দেয়ার আহ্বান’

    আগামী নির্বাচনে রাজনৈতিক দলগুলোকে সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকে মনোনয়ন দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ। নিজ জেলা কিশোরগঞ্জে পঁাচদিনের সফর...

ডোপ টেস্টের তথ্য গোপন:ডিজিএম গ্রাউন্ডেড

  আবারও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বহনকারী উড়োজাহাজ নিয়ে শুরু হয়েছে ব্যাপক তোলপাড়। এবার প্রধানমন্ত্রীর লন্ডন ফ্লাইটের আগমুহূতের্ ডোপ টেস্টে ধরা পড়েছে এক কে...

কর্মবিরতিতে অচল বেনাপোল বন্দর

বেনাপোল স্থলবন্দরের ভারতীয় অংশে মালামাল ওঠানামার কাজে অতিরিক্ত অর্থ নেয়াসহ পাঁচদফা দাবিতে ভারতীয় ব্যবসায়ীদের ডাকা অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি চলছে।   এতে বেন...

বগুড়ায় এগিয়ে চলেছে এসডিজি কার্যক্রম

বগুড়ায় দ্রুত এগিয়ে চলছে টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য-এসডিজি'র আওতায় 'দারিদ্র ও ক্ষুধামুক্ত' কার্যক্রম। এরই মধ্যে প্রতিটি উপজেলায় দরিদ্র, অতিদরিদ্র, ভূমিহীন এবং ভিক্ষুকদে...