DBC News
বিলুপ্তির পথে বর্ণিল ঈদকার্ডের ব্যবসা

বিলুপ্তির পথে বর্ণিল ঈদকার্ডের ব্যবসা

অনলাইন আর মোবাইল ফোনে শুভেচ্ছা বিনিময়ের প্রভাবে ভাটা পরেছে ঈদ কার্ডের বাজারে। কমে যাচ্ছে ঈদ কার্ডের ব্যবহার ও বিক্রি।

কিছুদিন আগেও নতুন পোশাক আর ভাল খাবারের পাশাপাশি ঈদ উদযাপনের অপরিহার্য উপাদান ছিল বন্ধু কিংবা প্রিয়জনের কাছ থেকে পাওয়া ঈদকার্ড। তাই ঈদ আসলেই বেড়ে যায় ছাপাখানা আর ঈদকার্ড প্রস্তুতকারি প্রতিষ্ঠানগুলির ব্যস্ততা।

কিন্তু কয়েক বছর ধরে ব্যবসা নেই ঈদকার্ড বিক্রেতা প্রতিষ্ঠানগুলির। আজাদ প্রোডাক্টস, আইডিয়াল প্রোডাক্টস কিংবা আর্চিস গ্যালারির মত সুপরিচিত কার্ড প্রস্তুতকারি প্রতিষ্ঠান তাই কমিয়ে এনেছে ঈদকার্ড ছাপানোর পরিমাণ।

আর গেল কয়েক বছরে ফেসবুক, টুইটারের মতো ইন্টারনেটভিত্তিক সামাজিক মাধ্যমের ব্যাপক উত্থানে কার্ডবিনিময় প্রথা প্রায় বিলুপ্ত এখন। এর প্রভাব পড়েছে কার্ডবাণিজ্যেও! ডিজিটালের দাপটে অনেকে কার্ড ব্যবসা গুটিয়ে মন দিয়েছেন অন্য কাজে। 

একসময় ঈদ সামনে রেখে নগরীর পাড়া-মহল্লায় অস্থায়ী কার্ডের দোকান বসত। মৌসুমি এ ব্যবসায় ঘিরে নগরীর আন্দরকিল্লার পাইকারি ঈদকার্ড ব্যবসায়ীরাও নিতেন বিশেষ আয়োজন। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে তেমনটা আর চোখে পড়ে না।

এখন অনলাইন আর মোবাইল ফোনের এসএমএসে শুভেচ্ছা বিনিময়- তাই ঈদকার্ড ব্যবসায় এই মন্দা বলে মনে করেন আর্চিস গ্যালারীর এসিস্টেন্ট ম্যানেজার সগির হোসেন।

শুভেচ্ছা বিনিময়ের প্রথা অটুট থাকলেও কাগজ, কাপড় আর রঙে রঙে বর্ণীল ঈদকার্ডের বাহারি সাম্রাজ্য অস্তমিত হতে চলেছে- এর স্মৃতি ধরে রাখতে ঈদকার্ড সংগ্রহ করে রাখতে পারেন সৌখিন সংগ্রাহকরা।